দেশনতুন খবরবিশেষব্যবসা

দ্বিতীয় লকডাউন চলাকালীন আবারো বেশ কিছু ক্ষেত্রে ছাড় দিল কেন্দ্র, জারি নির্দেশিকা..

দেশে করোনা ভাইরাসের সংক্রমন রুখতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির ডাকে জারি রয়েছে দ্বিতীয় দফার লকডাউন আর এই দ্বিতীয় দফার লকডাউন চলাকালীন গত 20 এপ্রিলের পর থেকে বিশেষ কিছু ক্ষেত্রে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির কথা অনুযায়ী ছাড় দেওয়া হয়েছে। এই বিষয়ে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকেও জারি করা হয়েছিল বিজ্ঞপ্তি। কারণ এইভাবে যদি দেশের ব্যবসা-বাণিজ্য শিল্পকর্ম আটকে থাকে তাহলে দেশের অর্থনীতি একেবারে জলের তলায় চলে যাবে তাই দেশের অর্থনীতির কথা ভেবেই কৃষিকার্য সহ বেশ কয়েকটি বিভাগের কাজ চালু করার সম্মতি জানানো হয়েছিল কেন্দ্রের তরফ থেকে। তবে আবারও এই COVID-19 এর গাইডলাইন মেনেই এই রোগ দমনের পর্বে আরও বিশেষ কিছু ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হল কেন্দ্রের তরফ থেকে। লকডাউনের দ্বিতীয় দফায় কীসে কীসে ছাড় দেওয়া হল আবারো তা স্পষ্ট জানিয়ে দেওয়া হল কেন্দ্রের তরফ থেকে। কেন্দ্রের তরফ থেকে জারি করা এই নতুন বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়েছে এবার থেকে শহর অঞ্চলে বেকারি ও দুগ্ধ প্রক্রিয়াকরণে অনুমতি দেওয়া হয়েছে খোলা হবে আটা ও ডালকল। এর পাশাপাশি ছাড় দেওয়া হয়েছে মোবাইল রিচার্জের দোকান গুলি। আর বয়স্কদের দেখাশোনা করার জন্য আয়াদের রয়েছে বিশেষ ছাড়। আর এই লকডাউন নিয়ে অনেকের মনে অনেক সংশয় রয়েছে তবে সেই সংশয় দূর করতে আবারও স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে মঙ্গলবার এই উদ্দেশ্যে রাজ্য গুলিকে বিভিন্ন নির্দেশিকা পাঠানো হয়েছে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রসচিব অজয় ভাল্লার তরফ থেকে। এই নির্দেশিকাটিকে লকডাউন পর্বে ইস্যু করা 15,16 ও 19 শে এভ্রিলের নির্দেশিকার সংযোজন।

তবে আর দেরি না করে আপনাদের জানিয়ে দেয়া যাক এই নতুন নির্দেশিকায় যে ক্ষেত্রগুলিতে ছাড় দেওয়া হয়েছে এবং সেগুলি কী কী- প্রথমত এই নতুন নির্দেশিকা অনুযায়ী বয়স্ক মানুষদের দেখাশোনা করার জন্য যেসব আয়া-রা রয়েছেন তাদেরকে ছাড় দেওয়া হয়েছে।2) এর পাশাপাশি ছাড় দেওয়া হয়েছে ডালকল, চালকল, পাউরুটি কারখানাগুলিকে

3) দুগ্ধ প্রক্রিয়াকরণ প্ল্যান্ট বা দুগ্ধ চাষীদেরকে এবার দ্বিতীয় লকডাউন এর দরুন ছাড় দেওয়া হয়েছে নতুন নির্দেশিকাতে

4) মোবাইল রিচার্জ ও প্রিপেড সেন্টার গুলিকে দ্বিতীয় ক্ষেত্রে দেওয়া হয়েছে ছাড়

5) ইলেকট্রিক পাখার দোকান গুলিকে এ ক্ষেত্রে দেওয়া হয়েছে ছাড়

6) বিভিন্ন বইয়ের দোকান গুলিকে দেওয়া হয়েছে ছাড়

7) কৃষি ও উদ্যান পালনের গবেষণা কেন্দ্রগুলি কে দেওয়া হয়েছে ছাড়

8) এর পাশাপাশি মৌমাছি পালন মধু এবং বীজ ও ফলের আমদানি-রপ্তানিতে গুদাম গুলিকেও দেওয়া হয়েছে ছাড়।
এর পাশাপাশি স্বরাষ্ট্র মন্ত্রকের তরফ থেকে জারি করা এই নির্দেশিকায় জানিয়ে দেওয়া হয়েছে যে সকল ক্ষেত্রগুলোকে এই ক্ষেত্রে ছাড় দেওয়া হয়েছে তারা সকলেই যেন COVID-19 এর যে গাইডলাইন গুলো রয়েছে সেগুলো যেন কঠোর ভাবে পালন করে। এর পাশাপাশি এক্ষেত্রে যেন সোশ্যাল ডিসটেন্স মেন্টেন করে এইসব কাজ করা হয় তাও স্পষ্ট জানিয়ে দেওয়া হয়েছে এই জারি করা বিজ্ঞপ্তিতে।

Related Articles

Back to top button