ফের ডিজিটাল স্ট্রাইক! এবার MI BROWSER-সহ আরও 15 টি চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধ ভারতে…

সম্প্রতি গালওয়ান উপত্যকায় ভারত এবং চীন সেনাদের সংঘর্ষের ফলে ভারতের 20 জন জাওয়ান শহীদ হন।আর এর পরেই লাদাখ সিমান্তে উত্তপ্ত হয়ে পড়ে। ভারত এবং চীন সম্পর্কের মধ্যে ভাঙন ধরে এরপর থেকেই। কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে চীনকে কড়া ভাষায় আক্রমণ করা হয়। এবং খুব শিগগিরই চীনের বিরুদ্ধে কড়া ব্যবস্থা নেওয়ার সিদ্ধান্ত নেয় কেন্দ্রীয় সরকার। এর দরুন প্রথমে 29 শে জুন Tiktok, Help, Xender সহ মোট 59 টি অ্যাপ্লিকেশন ভারতে সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ করার সিদ্ধান্ত নেওয়া হয় সরকারের তরফ থেকে।

আবার ফের দ্বিতীয়বারের জন্য ডিজিটাল স্ট্রাইক করল ভারত। Mi Browser সহ মোট 15 টি চীনা অ্যাপ নিষিদ্ধ করল ভারত সরকার। বৃহস্পতিবার ভারত সরকার তরফ থেকে এই ঘোষণা করা হয়। এই 15 টি অ্যাপ এর তালিকায় রয়েছে Search Lite, Airbrush, Mi Browser, BoXxCAM, MeiPai, Baidu Search মতো চীনা অ্যাপের নাম রয়েছে। Redmi, Xiaomi, Poco এই স্মার্টফোন গুলিতে Mi Browser বলে একটি অ্যাপ দেওয়া থাকে। তাই ভারত সরকারের এই সিদ্ধান্তের ফলে এই কোম্পানী গুলির ফোন বিক্রির ওপর কিছুটা হলেও প্রভাব পড়বে বলে মনে করেছেন বিশেষজ্ঞরা।

সরকার এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে মূলত ভারতীয় ইউজারদের তথ্য সুরক্ষিত রাখার জন্য। এর আগে একাধিকবার বিভিন্ন চীনা সংস্থার ওপর গ্রাহকদের গোপন তথ্য চুরি করার অভিযোগ উঠেছে। এর মধ্যে সবথেকে বড় চীনা সংস্থা Xiaomi এর নাম রয়েছে। তাই যে সমস্ত অ্যাপস গুলি থেকে তথ্য হাতিয়ে নেওয়ার অভিযোগ উঠে এসেছে সেই সমস্ত অ্যাপসগুলোকে এদেশে নিষিদ্ধ করেছে সরকার। দ্বিতীয় ধাপে 15 টি অ্যাপ ভারত সরকার কোনো প্রকার ঘোষণা ছাড়াই নিষিদ্ধ করে দিয়েছে। Mi Browser ভারতে নিষিদ্ধ হওয়ার পরেই Xiaomi সংস্থার এক মুখপাত্র এ বিষয়ে জানান যে, ভারতীয় আইনের সুরক্ষা এবং গোপনীয় সংক্রান্ত সমস্ত তথ্য মেনে চলেছে আমাদের সংস্থা এবং ভবিষ্যতেও তা মেনে চলবে।সরকারের তরফ থেকে এই ধরনের সিদ্ধান্ত কেন নেওয়া হল সেই বিষয়ে সরকারের কাছে বক্তব্য পেশ করার সুযোগ চাইবে এই সংস্থা।