চারটি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্কের বেসরকারিকরণের পথে হাঁটতে চলেছে কেন্দ্র, তৈরি তালিকাও

ব্যাংক বেসরকারিকরণের প্রক্রিয়া কেন্দ্রের কাছে বহুদিন ধরে রয়েছে আর এবারের বাজেটে অর্থমন্ত্রী নির্মলা সীতারমন সে কথা উল্লেখ ও করেছেন। আর এই প্রক্রিয়া শুরু করা হবে আগামী অর্ধবর্ষ থেকে একথা তিনি জানিয়ে দিয়েছেন এবারের বাজেটে অর্থমন্ত্রী। সরকারি সূত্রে জানতে পারা যাচ্ছে ইতিমধ্যে কেন্দ্র সরকার এর জন্য চারটি রাষ্ট্রীয়ত্ত্ব ব্যাংকে বেছে নিয়েছে যাদের মধ্যে নাম রয়েছে ব্যাঙ্ক অফ মহারাষ্ট্র, ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া, ইন্ডিয়ান ওভারসিজ ব্যাঙ্ক, ও সেন্ট্রাল ব্যাঙ্ক অফ ইন্ডিয়া।

প্রাপ্ত খবর অনুযায়ী জানতে পারা যাচ্ছে আগামী অর্থ বর্ষ 2021 থেকে 2022 এর মধ্যে প্রথমে দুটি ব্যাংকের বেসরকারিকরণ করা হবে। তারপর যদি সবকিছু ঠিকঠাক থাকে তাহলে নজর ঘোরানো হবে অন্যান্য বড় ব্যাংক গুলির উপর। তবে এক্ষেত্রে স্টেট ব্যাঙ্কের সমস্ত কন্ট্রোল নিজেদের হাতে রাখার পরিকল্পনা রয়েছে সরকারের।

ভয়াবহ মহামারী করোনার জেরে বর্তমানে রাজকোষ শূন্য, তাই আয় বাড়াতে ব্যাংকসহ অন্যান্য রাষ্ট্র সংস্থাগুলিকে বেসরকারিকরণের পথে হাঁটতে চালছে কেন্দ্র সরকার তবে এ বিষয়ে একাধিক বাধা আসবে সে ব্যাপারে নিশ্চিত রয়েছে কেন্দ্র, কারণ একবার যদি বেসরকারিকরণ প্রক্রিয়া শুরু করা হয় তাহলে সে ক্ষেত্রে ছাঁটাই পড়বে বহু কর্মী, যার দরুন রাস্তায় প্রতিবাদে নামতে পারে ইউনিয়ন সংস্থা সহ বহু কর্মীরা।

তবে বলে রাখি এই যে প্রক্রিয়াটি রয়েছে সেটি শুরু হতে 5-6 মাস সময় লাগতে পারে। কর্মীদের সংখ্যা, ট্রেড ইউনিয়নগুলির চাপ এবং রাজনৈতিক প্রতিক্রিয়া চূড়ান্ত সিদ্ধান্তকে প্রভাবিত করবে। এই কারণগুলির কারণে, কোনও ব্যাংককে বেসরকারী করার সিদ্ধান্তও শেষ মুহুর্তে পরিবর্তন করা যেতে পারে। সরকার মূলত সরকারী খাতের ব্যাংকগুলিতে শেয়ার বিক্রি করে রাজস্ব বাড়াতে চায় যেগুলি ভাল পারফর্ম করছে না যাতে সরকারী প্রকল্পগুলিতে অর্থটি ব্যবহার করা যায়। বর্তমানে দেশে সরকারী খাতের ১২ টি ব্যাংক রয়েছে।