ভিন্ন রাজ্যে যাতায়াতের সুবিধা আনতে নতুন রেজিস্ট্রেশন মার্ক তৈরি করল কেন্দ্র, এবার থেকে

ঝঞ্ঝাট মুক্ত যানবাহন নিয়ে যাতায়াতের জন্য কেন্দ্র এক সুবিধাজনক নিয়ম নিয়ে এলো। এই দিন একটি নয়া রেজিস্ট্রেশন ঘোষণা করলো কেন্দ্র।শনিবার কেন্দ্রীয় সড়ক পরিবহন মন্ত্রী জানান এই নয়া রেজিস্ট্রেশনে ভিন রাজ্যে গাড়ি নিয়ে যাতায়াত করা আরও সুবিধাজনক হয়ে যাবে। এই রেজিস্ট্রেশন এ জানা যাচ্ছে এক রাজ্য থেকে আর এক রাজ্যে যানবাহন নিয়ে যাতায়াতের জন্য নতুন করে রেজিস্ট্রেশন করার প্রয়োজন পড়বে না। কেন্দ্র তরফ থেকে এই রেজিস্ট্রেশন মার্কের নাম রাখা হয় “ভারত শৃঙ্খলা”।

তবে কেন্দ্রের তরফ থেকে জানানো হয়েছে এই সুবিধা সকলের জন্য নয় । মূলত কেন্দ্র এবং রাজ্যের সরকারি কর্মী ,প্রতিরক্ষা কর্মী, রাজ্য এবং কেন্দ্রীয় সরকারি এবং বেসরকারি সংস্থার যাদের চার বা ততোধিক রাজ্যে শাখা রয়েছে তারাই এই সুবিধা পেয়ে থাকবে। এই নিয়ম চালু হওয়ার পর অনেক সুবিধাই হবে বলে মনে করা হচ্ছে।

এতদিন পর্যন্ত যানবাহন সংক্রান্ত চালু নিয়মে ১৯৮৮-র ৪৭ ধারা কেই অনুসরণ করা হচ্ছিল। কতদিন পর্যন্ত অন্য রাজ্যে যদি গাড়ি নিয়ে যাওয়া হতো সেক্ষেত্রে ১২মাসের মধ্যে রেজিস্ট্রেশন করা বাধ্যতামূলক ছিল ।সর্বোচ্চ ১২ মাসের মধ্যে রেজিস্ট্রেশন করা ছাড়া তা রাখা যেত না । তবে এবার থেকে এই নিয়ম বদলানোর ফলে স্বস্তির নিঃশ্বাস ছাড়ছেন অনেকেই। ভারত শৃঙ্খলা নিয়মে যানবাহন সংক্রান্ত এসমস্ত ঝঞ্ঝাট থেকে মুক্তি পাচ্ছেন অনেকেই ।

নতুন করে রেজিস্ট্রেশন এর ঝামেলায় পড়তে না হওয়ার জন্য অনেকেই এই নতুন নিয়মে খুবই খুশি। কিছুদিন আগেই পুরনো যানবাহন নিয়ে নয়া নীতি পেশ করেছিল কেন্দ্র । এই নয়া নীতি নতুন মাইলফলক হবে জানান প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি আরো দাবি করেন এই নয়া নীতির ফলে পুরনো এবং দূষণ উদ্রেককারী যানবাহন কে সরিয়ে দেওয়া কার্যকর হবে।

আর এটি হলে দেশের সমস্ত নাগরিক জীবন এবং শিল্পের ক্ষেত্রে আমূল পরিবর্তন আসবে।তবে প্রধানমন্ত্রী আরো বলেছেন এর সাথে সাথে খেয়াল রাখতে হবে যানবাহন গুলি কত পুরনো এবং গাড়ি গুলি চলাচলের যোগ্য কিনা সেই দিকটা আগে খেয়াল রাখতে হবে।