ব্রেকিং নিউজঃ চলবে না কোনও লোকাল ট্রেন ফের পরিষেবা বন্ধের ঘোষণা রেল মন্ত্রকের, চিন্তায় ঘুম ছুটেছে মধ্যবিত্ত সাধারণ মানুষের..

দীর্ঘদিন ধরে লকডাউন চলার পর ধীরে ধীরে স্বাভাবিক হতে শুরু করেছিল জনজীবন। শুরু করা হয়েছিল আনলক পর্ব ওয়ান, তবে আবারো করোনা সংক্রমনের জেরে সাধারণ যাত্রীদের চিন্তার ভাঁজ ফিরে এলো কারণ রেল মন্ত্রকের তরফ থেকে এই মুহূর্তে বেরিয়ে এলো বড় ঘোষণা যেখানে জানানো হয়েছে রেল পরিষেবা আবারো একদফায় বন্ধ করে দেওয়া হল। আজ রেল বোর্ডে তরফ থেকে জানিয়ে দেওয়া হয়েছে তারা তাদের পরিষেবা আগামী 12 ই আগস্ট পর্যন্ত বন্ধ রাখতে চলেছে। এক্ষেত্রে বন্ধ থাকবে সমস্ত দূরপাল্লার ট্রেন সহ সমস্ত লোকাল ট্রেন গুলি।

রেল বোর্ডের তরফ থেকে জানানো হয়েছে সমস্ত ধরনের মেইল এক্সপ্রেস প্যাসেঞ্জার ট্রেন চলবে না একই সঙ্গে বন্ধ থাকবে অন্যান্য যাত্রী পরিষেবা।শুধুমাত্র এক্ষেত্রে স্পেশাল ট্রেন চলবে পরিযায়ীদের জন্যই। অন্যদিকে এই বিষয়ে সংবাদ সংস্থা ANI এক তরফ থেকে যে খবর বেরিয়ে আসছে সেখানে জানানো হয়েছে করোনা পরিস্থিতির কথা মাথায় রেখেই আগামী 12 ই আগস্ট পর্যন্ত কোন ভাবেই যাত্রী পরিষেবা চালু করা যাবে না, বন্ধ থাকবে শহরতলীর সমস্ত লোকাল ট্রেন পরিষেবা।

শুধু তাই নয় মেইল এক্সপ্রেস ও পেসেঞ্জার ট্রেন পরিষেবা বন্ধ রাখা হবে আর করোনা সংক্রমণের আশঙ্কা জন্যই এরকম এক সিদ্ধান্তের কথা ঘোষণা করা হয়েছে। তাই রেলওয়ে বোর্ডের এরকম এক সিদ্ধান্তের জেরে নতুন করে সমস্যায় পড়তে চলেছেন সাধারণ যাত্রীরা। যেমনটা আমরা জানি এই মুহূর্তে আনলক ওয়ানের জেরে খুলে দিয়েছে সমস্ত অফিস। আর এই অফিস খুলে গেলেও পর্যাপ্ত পরিমাণে পরিবহন ব্যবস্থার যোগান না থাকায় অনেক সমস্যায় পড়ছেন সাধারণ মানুষেরা।


তবে সকলেই আশা রেখেছিলেন যে আগামী জুলাই মাস থেকে হয়তো শুরু হয়ে যেতে পারে লোকাল ট্রেন পরিষেবা। যার জেরে কমতে পারে যাত্রীদের দুর্ভোগ এমনটাই আশঙ্কা করেছিলেন তারা। আবারো একদফায় যাত্রীদের উদ্বেগ বাড়িয়ে আগামী 12 আগস্ট পর্যন্ত সমস্ত পরিষেবা বন্ধ রাখার ঘোষণা করে দিয়েছে রেলমন্ত্রক, যার ফলে একটি রীতিমতো চিন্তায় ফেলেছে শহরতলীর অফিস যাত্রীদের। চিন্তা একটাই কীভাবে এইসব যাত্রীরা তাদের কর্ম ক্ষেত্রে পৌঁছাবেন? চিন্তায় ঘুম ছুটেছে সকল মধ্যবিত্ত সাধারণ মানুষেরও।