দুঃসংবাদ! করোনায় আক্রান্ত বলিউডের আলিয়া, ফ্যানদের খোদ টুইট করে জানালেন সেকথা

করোনার প্রথম ঢেউ- এ মৃত্যু হয়েছে বহু মানুষের। করোনার প্রথম ঢেউ -এ একসাথে টলিউড এবং বলিউডের বিখ্যাত নায়ক নায়িকাদের মৃত্যু হয় । এখন দেশে শুরু হয়েছে করোনার দ্বিতীয় ঢেউ। এবার করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ে সংক্রমিত হয়েছে বলিউডের বিখ্যাত নায়িকা আলিয়া ভাট।

 

এই অভিনেত্রীর যে করোনা পজিটিভ রিপোর্ট এসেছে তা তিনি নিজেই তাঁর ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলের মাধ্যমে জানিয়েছেন। করোনার রিপোর্ট পজিটিভ আসার পরে এই অভিনেত্রী আপাতত হোম কোয়ারেন্টাইনেই রয়েছেন। করোনা পজিটিভ রিপোর্ট আসার পরে এই অভিনেত্রী বৃহস্পতিবার অর্থাৎ ১ এপ্রিল তাঁর ইনস্টাগ্রাম হ্যান্ডেলে লিখেছেন, “সবাইকে জানাতে চাই আমার করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছে। আমি ইতিমধ্যে নিজেকে আইসোলেশনে নিয়ে গিয়েছি। হোম কোয়ারেন্টাইনে রয়েছি। চিকিৎসকদের পরামর্শ মেনে কোভিড সংক্রান্ত সমস্ত নিয়ম মেনে চলছি।

আপনাদের প্রত্যেকের ভালবাসা এবং সমর্থনের জন্য ধন্যবাদ। সবাই সাবধানে থাকবেন এবং খেয়াল রাখবেন।” আলিয়া ভাটের আগে করোনা রিপোর্ট পজিটিভ এসেছিল তার ঘনিষ্ঠ বন্ধু ঋষি কাপুরের ছেলে রণবীর কাপুরের। রণবীর কাপুর আপাতত সুস্থ আছে বলে খবর পাওয়া যায়। তবে এখন বন্ধুর পরে করোনা পজিটিভ হয়েছে বান্ধবীর। অপরদিকে বৃহস্পতিবার ১ এপ্রিল করোনার প্রথম ডোজ নেন অভিষেক বচ্চন বচ্চন সহ পরিবারের সকলেই। গতবছর অমিতাভ বচ্চন অভিষেক বচ্চন, ঐশ্বর্য রায় এবং নাতনি আরাধ্যা করোনায় আক্রান্ত হয়েছিলেন। তবে এখন তাদের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে।

বচ্চন পরিবারের সদস্যদের মধ্যে কেউ কেউ করোনার টিকা নেওয়ার খবরটি জানাতে নিয়ে অমিতাভ বচ্চন লিখেছেন “পরিবারের প্রত্যেকের এবং বাড়ির সমস্ত স্টাফেদের করোনা পরীক্ষা করা হয়েছিল। সবার রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। এরপর প্রত্যেকেই করোনা টিকার প্রথম ডোজটি নিয়েছি। তবে অভিষেক টিকা নেয়নি। বাইরে রয়েছে। সেখান থেকে ফিরলে টিকা নেবে।”