কংগ্রেসের রেকর্ড ভেঙে 2047 সাল পর্যন্ত বিজেপিই ক্ষমতায় থাকবে, দাবি বিজেপি নেতা রাম মাধবের..

2014 সালে প্রথম দফায় ক্ষমতায় এসে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী কংগ্রেস মুক্ত ভারত গড়ে তোলার শ্লোগান তুলেছিলেন। তবে প্রথম পাঁচ বছর ভারতকে কংগ্রেস মুক্ত করা সম্ভব হয়নি বিজেপির পক্ষে। তবে এবার রাহুল গান্ধীর পরপর দুটি লোকসভা নির্বাচনের ভোটে হারের পর চরম বিপর্যস্ত হয়েছেন। আর এমন এক পরিস্থিতিতে বিজেপি নেতা রাম মাধব জানিয়েছেন ভারতকে কংগ্রেসের শাসন রেকর্ড ভেঙে দিবে বিজেপি।

কারণ তিনি স্পষ্ট জানিয়ে দিলেন ভারতের সবচেয়ে বেশি দীর্ঘতম প্রধানমন্ত্রী হিসেবে থাকবেন নরেন্দ্র মোদি। এমন কি শুধু তাই নয় ভারত যখন তার স্বাধীনতার 100 বছর পূর্ণতা লাভ করবে অর্থাৎ স্বাধীনতার শতবর্ষ পূর্তি পালন করবে তখন ও ভারতে ক্ষমতায় থাকবে বিজেপি।গত শুক্রবার দিন এই বিজেপি নেতা রাম মাধব বলেন দ্বিতীয় দফায় নরেন্দ্র মোদীর নেতৃত্বে শক্তিশালী সরকার তৈরি হয়েছে। আর এবার এই সরকার সবচেয়ে বেশি সময় ধরে ক্ষমতায় থাকবে।

শুক্রবার ওই বিজেপি নেতা ছিলেন ত্রিপুরার আগরতলায়। ওই রাজ্যে দু’টি লোকসভা আসন রয়েছে। দু’টিতেই এবার বিজেপি জিতেছে। সেই জয়ের উত্সব পালন করতেই শুক্রবার আগরতলায় হাজির হয়েছিলেন রাম মাধব। এই দিন তিনি ত্রিপুরার বিজয় উত্সবে উপস্থিত থেকে সেখানকার মানুষদের অসংখ্য ধন্যবাদ জানান।সাথে তিনি মোদি সরকার কে দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় ফেরানো ও প্রথমবার ত্রিপুরা দুটি আসনে বিজেপি জিতে যাওয়ায় জন্য ওই রাজ্যের ভোটারদের ধন্যবাদ দিয়েছেন।

তিনি ওই বিজয়োত্সব থেকে ত্রিপুরার মানুষকে ধন্যবাদ জানান। মোদী সরকারকে দ্বিতীয়বার ক্ষমতায় ফেরানো ও প্রথমবার ত্রিপুরার দু’টি আসনে বিজেপি জিতে যাওয়ায় তিনি ওই রাজ্যের ভোটারদের ধন্যবাদ দিয়েছেন।আর তারপরই এই উৎসব থেকেই তিনি বিজেপিকে কেন্দ্রে ক্ষমতায় থাকার রেকর্ড প্রসঙ্গে কথা তোলেন। তিনি বলেন যেমন কংগ্রেস স্বাধীনতার পর সবচেয়ে বেশি সময় দেশে শাসন ভার চালিয়েছিল।তারা 1950 সাল থেকে 1977 সাল পর্যন্ত ক্ষমতায় ছিল।

ঠিক সেরকমই এবার মোদি সরকার স্বাধীনতার শতবর্ষ পূর্তি পর্যন্ত ক্ষমতায় থাকবেন কথা তিনি বলতে চেয়েছেন মোদি সরকার এবার 2047 সাল পর্যন্ত ক্ষমতায় বিরাজমান থাকবেন।