শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যার কারণে ফের গভীর রাতে এইমস হাসপাতালে ভর্তি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী…

এখনো পর্যন্ত দু’সপ্তাহ হয়নি যখন তিনি এইমস হাসপাতাল থেকে বাড়ি ফিরেছিলেন। তবে আবারও শনিবার দিন গভীর রাত্রে কেন্দ্রীয় স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী অমিত শাহকে ফের ভর্তি করা হলে দিল্লির অল ইন্ডিয়া ইনস্টিটিউট অব মেডিকেল কলেজে। এদিন রাত 11 টায় ফের এইমসে ভর্তি করা হয়েছে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীকে। হাসপাতালের কার্ডিও নিউরো টাওয়ারে ভর্তি হয়েছেন তিনি। বিজেপি সূত্রে খবর শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা হয়েছে তার, তবে গত 2 আগস্ট অমিত শাহের শরীরে করোনা পজিটিভ রিপোর্টের ছিল যার দরুন তাকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল।

তারপর আগামী 14 ই আগস্ট যখন তার করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ আসে তখন তিনি হাসপাতাল থেকে ছাড়া পান। আর হাসপাতাল থেকে ছাড়া পাওয়ার পর তাকে এই নিয়ে টুইট ও করতে দেখা যায় যেখানে তিনি দেশবাসীর উদ্দেশ্যে লিখেন ভগবানের কৃপায় এবং দেশবাসীর আশীর্বাদে আমার করোনা টেস্টের রিপোর্ট নেগেটিভ এসেছে। যদিও তারপর চিকিৎসকদের পরামর্শে তিনি কিছুদিনের জন্য হোম আইসোলেশনেও ছিলেন, তবে এবার ফের তাঁকে হাসপাতালে ভর্তি করানো হল। জানা যাচ্ছে, করোনা আক্রান্ত হওয়ার পর থেকে তাঁর শ্বাসকষ্টজনিত সমস্যা চলছে। আর এদিকে দেশে করোনা আক্রান্তের সংখ্যা ক্রমশ বেড়েই চলেছে প্রতিদিন আক্রান্তের নিরিখে রেকর্ড গড়ছে ভারত।

এর পাশাপাশি বাড়ছে দিন দিন মৃত্যুর সংখ্যাও। তাছাড়া ইতিমধ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যার নিরিখে দেখতে গেলে বিশ্ব- তালিকার দ্বিতীয় স্থানে রয়েছে ভারত। স্বাস্থ্যমন্ত্রকের রিপোর্ট অনুযায়ী, গত 24 ঘণ্টায় নতুন করে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন 97,570 জন। রোজই এই ভাইরাস নিজের রেকর্ড নিজে ভাঙছে। আর এটি এখনও পর্যন্ত একদিনে রেকর্ড বৃদ্ধি। আর এখন এই সংখ্যা বৃদ্ধির জেরে করোনায় আক্রান্তের মোট সংখ্যা গিয়ে দাঁড়িয়েছে 46 লক্ষ 59 হাজার 984 জন।

আপাতত ভারতে মোট অ্যাক্টিভ করোনা আক্রান্তের সংখ্যা রয়েছে 9 লক্ষ 58 হাজার 316 টি, গত 24 ঘন্টায় করোনার জেরে মৃত্যুর হয়েছে 1201 জনের। যারফলে বর্তমান এর মৃত্যুর সংখ্যা দাঁড়িয়েছে 77,472 টি। আর এই মুহূর্তে বিশ্বে করোনায় মৃতের সংখ্যায় 3 নম্বরে রয়েছে ভারত। আর তার পাশাপাশি এখনও পর্যন্ত করোনায় সুস্থ হয়েছেন 36 লক্ষ 24 হাজার 196 জন। এশিয়ার মধ্যে করোনা আক্রান্তের সংখ্যার বিচারে শীর্ষস্থানে রয়েছে ভারত। তাছাড়া এখন আমেরিকা ও ব্রাজিলের থেকে বর্তমানে ভারতে অনেক বেশি দ্রুত গতিতে ছড়াচ্ছে করোনা ভাইরাস৷ সংক্রমণের নিরিখে এই নিয়ে টানা 37 দিন শীর্ষে ভারত।