দেশনতুন খবর

বড়দিনের আগেই মোদী সরকার দেশবাসীকে দিলেন বড় উপহার, জানার পর প্রতিটি ভারতীয় খুশি হয়ে যাবে !

যখন থেকে বিজেপি সরকার বিধানসভার নির্বাচনে হারের সম্মুখীন হয়েছে তখন থেকে বিজেপি সরকারের এক নতুন রূপ সামনে আসছে।এখন বিজেপির নেতা ও কার্যকর্তা এত বেশি সক্রিয় হয়ে উঠেছে যে একের পর এক নতুন পদক্ষেপ নিয়ে চলেছেন যার ফলে লাভবান হতে চলেছে সাধারণ জনতা। যেমন কি আপনারা সকলেই জানেন ২০১৯ এর লোকসভা নির্বাচনে আর কিছু মাসেই বাকি আর এর মধ্যে বিজেপি সরকার সাধারণ মানুষ কে নিজের দিকে আকর্ষিত করার জন্য কিছু নতুন পদক্ষেপ নিয়েছেন যার ফলে পুরো দেশে খুশির মহল বোঝায় থাকবে। আসুন জেনে নি মোদি সরকার জনগণের স্বার্থে কি এমন নতুন পদক্ষেপ নিয়েছেন।

যেমন কি আপনারা সকলেই জানেন মোদি সরকার দেশের প্রধানমন্ত্রী হওয়ার পর থেকে কিছু বড় সিদ্ধান্ত গ্রহণ করেছেন যা আজ পর্যন্ত কোন সরকার নিতে পারেনি তারই মধ্যে একটি হল,সমস্ত রকম ছোট ছোট কর গুলি শেষ করে দিয়ে একক করের সিদ্ধান্ত নেওয়া যার নাম দেন জি এস টি। কিন্তু জিএসটির ফলে দৈনিক কিছু জিনিসের দাম ২৮ শতকরা কর ট্যাক্সের মধ্যে রাখা হয়েছিল যার ফলে তার বোঝা সাধারণ মানুষের জীবনকে প্রভাবিত করেছিল। আর সাধারন মানুষের এই বোঝা কে দূর করার জন্য কিছুদিন আগে দিল্লির জিএসটি (GST) কাউন্সিলে একটি বৈঠকের আয়োজন করেন যার সভাপতিত্ব করেন কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি।

আপনাদের সুবিধার্থে বলে দিই এই বৈঠকটি শনিবার দিন করা হয়েছিল যার খবর দিতে হয়ে পন্ডিচেরীর মুখ্যমন্ত্রী নারায়ণস্বামী বলেছিলেন যে সাধারণ মানুষের নিত্য প্রয়োজনীয় 33 টি বস্তুর উপর 18 শতকরা ট্যাক্সের পরিমাণকে কমিয়ে 12 শতকরা আর 5 শতকরার আওতায় রাখা হয়েছে। এছাড়া পাঁচটি এমন বস্তু রয়েছে যাদের 28 শতকরা লাভের থেকে কমিয়ে 18 শতকরা মধ্যে আনা হয়েছে।তবে এখনো পর্যন্ত এই বস্তু গুলির সূচি জারি করা হয়নি যে কোন বস্তু গুলির ওপরে এটি ধার্য করা হয়েছে।

মোদি সরকারের এই নতুন ঘোষণার ফলে দেশের সমস্ত মানুষেরা অনেকটা হলেও রেহাই পাবে। জনগণের স্বার্থে জারি করা এই ঘোষণার ফলে 2019 সালের লোকসভা নির্বাচনে মোদি সরকার কে জিতার হাত থেকে কেউ আটকাতে পারবেনা বলে আশা করা যাচ্ছে।

Related Articles

Back to top button