চাপ বাড়ল BCCI প্রেসিডেন্টের! IPLএর দ্বিতীয় পর্ব শুরু হওয়ার আগেই এক এক করে দল ছাড়ছেন বিদেশি ক্রিকেটাররা

ভারতের জনপ্রিয় আইপিএলের ২০২১-এর প্রথম পর্ব বন্ধ হয়ে গিয়েছিল করোনা পরিস্থিতির জন্য।কিন্তু টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের ঠিক আগেই ১৯ শে সেপ্টেম্বর থেকে শুরু হতে চলেছে আইপিএল এর দ্বিতীয় পর্ব এবং তা টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগেই শেষ করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে বিসিসিআই। সংযুক্ত আরব আমিরশাহী তে হতে চলেছে আইপিএল এর দ্বিতীয় পর্ব।আর বিশ্বকাপে আগে অনেকেই আইপিএল-এর দ্বিতীয় পর্ব খেলতে উৎসাহী রয়েছেন অনেক খেলোয়ার রা,কারণ তারা মনে করছেন বিশ্বকাপের আগে এর থেকে ভালো প্রস্তুতি হবে না।

দুবাইতে আইপিএলের ফাইনাল রয়েছে ১৫ ই অক্টোবর। মরু দেশে এবার বিশ্বকাপ ও খেলা হবে। ২০২১ এর আইপিএল এর প্রথম পর্ব খেলা হয়েছিল ভারতে। সেখানে মোটামুটি সকল ই পূর্ণ শক্তি নিয়ে নেমেছিল। ২৯টা ম্যাচ খেলা হয়েছিল কিন্তু করোনা ফলে মাঝপথে বন্ধ হয়ে যায় আইপিএল।আর ইতিমধ্যে আইপিএলের দ্বিতীয় পর্ব থেকে নাম তুলে নিয়েছেন ৬ জন ইংরেজ ক্রিকেটার। ফলে ১০জন ইংরেজ খেলোয়াড় কে পাবে ফ্র্যাঞ্চাইজিগুলো।

সে ক্ষেত্রেও তৈরি হচ্ছে আইপিএলের বড় বাঁধা। আইপিএল এর প্লে অফ এর আগেই দেশে ফিরতে হবে বাকি ন’জন ক্রিকেটারকে। টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য। যার ফল ভোগ করতে হতে পারে ফ্র্যাঞ্চাইজি গুলিকে। আরসিবি অন্তর্ভুক্ত জর্জ গার্ডেন কেবলমাত্র খেলবে আইপিএল এ। বাকি খেলোয়াড় ৯ ই অক্টোবর ফিরে যাবেন দেশে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের আগে।এইভাবে খেলোয়াড় না থাকার ঝক্কি পোহাতে হবে কেকেআর,রাজস্থান রয়েলস,রয়েল চ্যালেঞ্জার্স , দিল্লি ডেকানট্রাপ, চেন্নাই সুপার কিংস দলগুলিকে।

কেকেআরের অধিনায়ক ইয়ন মরগান, ধোনির চেন্নাই সুপার কিংস দলের শ্যাম ক্যুরান এবং মঈন আলীর মতো খেলোয়াড়, রাজস্থানের লিয়াম লিভিংস্টোন, দিল্লির ক্যাপ্টেন ক্যুরান, রাজস্থান রয়েলসের জস বাটলার ও রয়েল চ্যালেঞ্জার্স সে জোফরা আর্চার মত খেলোয়াড়রা। ১০ই অক্টোবর প্লে-অফের আগে তাদের নিজের নিজের দেশে ফিরতে হবে।