বেবি পাউডার বাড়াচ্ছে ক্যান্সারের ঝুঁকি! ফৌজদারি তদন্তের মুখে জনসন অ্যান্ড জনসন …

জয়পুরের ড্রাগ টেস্টিং ল্যাবরেটরি পর এবার যুক্তরাষ্ট্রে বড়সড় ধাক্কা খেলো ‘জনসন এন্ড জনসন’ – এর খুব জনপ্রিয় ট্যালকম পাউডার। এই সংসদের বিরুদ্ধে ফৌজদারির তদন্ত শুরু হয়েছে আমেরিকায়। কয়েক মাস আগে জয়পুরের ড্রাগ টেস্টিং এর এক পরীক্ষায় একটি চাঞ্চল্যকর তথ্য ফাঁস হয়। জনসন এন্ড জনসন এর বেবি শ্যাম্পু এবং ট্যালকম পাউডারে এমন কতগুলি রাসায়নিক উপাদান খুঁজে পাওয়া গেছে যাতে ক্যান্সারের মতোন মারাত্মক রোগ সৃষ্টি হতে পারে। ওই পরীক্ষায় জানা গিয়েছে, ফরম্যালডিহাইড সহ আরো অনেক রাসায়নিক পদার্থ মিশে রয়েছে জনসন অ্যান্ড জনসনের ট্যালকম পাউডার এবং শ্যাম্পুর মধ্যে।

এমন মারাত্মক খবর পাওয়ার পর থেকেই জনসন বেবি প্রোডাক্ট বাজারে বন্ধ করে দেওয়ার নির্দেশ দেয় ন্যাশনাল কমিশন ফর প্রোটেকশন অব চাইল্ড রাইটস’ (NCPPCR) । এই বছরে অর্থাৎ 2019 সালের প্রথমদিকে ক্যালিফোর্নিয়ার এই সংস্থার বিরুদ্ধে এক মহিলা মামলা করেন। মামলাকারী ওই মহিলার অভিযোগ, জনসন অ্যান্ড জনসন সস্তার বেবি পাউডার ব্যবহার করেই মেসোথ্যাল মিয়া নামক এক রোগে আক্রান্ত হয়েছেন তিনি। ক্যালিফোর্নিয়ার সুপ্রিম কোর্ট নির্দেশ দিয়েছে যে মামলা কারীর অভিযোগ যদি সত্যি প্রমাণিত হয় তাহলে ওই সংস্থাকে ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় 199 কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ দিতে হবে।

তবে অবাক হওয়ার বিষয় হল ক্যালিফোর্নিয়ার সুপিরিয়ার কোর্টেএর আগে 13000 এরও বেশি অভিযোগ জমা পড়েছে এই সংস্থার বিরুদ্ধে। এছাড়াও দেশের অন্যান্য জায়গা থেকে এই সংস্থার বিরুদ্ধে আরো হাজার হাজার অভিযোগ জমা পড়েছে। বিশ্বের নানান জায়গাতে এই কোম্পানির গুণগত মান পরীক্ষার ক্ষেত্রে পুরোপুরি ভাবে ফেল করে গেছে জনসন অ্যান্ড জনসন সংস্থা। জনসন অ্যান্ড জনসন এর বেবি পাউডার এবং শ্যাম্পুতে যে দুটি ক্ষতিকারক রাসায়নিক পদার্থ সব থেকে বেশি উপস্থিত রয়েছে সেগুলির মধ্যে হল ফরম্যালডিহাইড আর অ্যাসবেস্টাস।

ফরম্যালডিহাইড হলো প্লাইউড, ফাইবার বোর্ড, এবং নানারকম আঠা তৈরিতে ব্যবহৃত করা হয়। আর অ্যাসবেস্টাস হল, এক প্রকারের খনিজ পদার্থ যা উচ্চ তাপ শোষণ ক্ষমতা থাকে। বিশেষজ্ঞদের মতে এই দুই উপাদান ক্যান্সারের মতো আরও মারাত্মক ঝুঁকিপূর্ণ রোগের সম্ভাবনা অনেক গুণ বাড়িয়ে দেয়। তবে জনসন অ্যান্ড জনসন সংস্থার কর্তৃপক্ষ তাদের পণ্যের থেকে ক্যানসারের ঝুঁকির আশঙ্কা পুরোপুরি উড়িয়ে দিয়েছেন এবং এই সমস্ত পণ্যগুলি তারা পুরোপুরি নিরাপদ বলে দাবি করেছেন।

The India Desk

Indian famous bengali portal, covers the breaking news, trending news, and many more. Email: theindianews.org@gmail.com

Related Articles

Close