পুরুষের শুক্রাণুর গুণগত মান কমাতে পারে কোভিড -১৯ , সমীক্ষায় বেরিয়ে এল চাঞ্চল্যকর তথ্য

করোনা মহামারীর ফল হতে পারে সুদূরপ্তসারী। পুরুষের ক্ষেত্রে কমে যেতে পারে প্রজনন ক্ষমতা৷সম্প্রতি গবেষণায় একথা জানিয়েছেন ফ্রান্সের বিজ্ঞানীরা। প্রাণঘাতী এই ভাইরাস পুরুষদের মধ্যে ফার্টিলিটি ক্ষমতা হ্রাস করতে পারে।

বর্তমানে সারা বিশ্বে  প্রায় ২২.২ মিলিয়ন মানুষ করোনার প্রকোপে পড়েছেন। বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন,  শুক্রাণু কোষের মৃত্যু ঘটাতে পারে করোনা। গবেষকরা লিখেছেন, “এই আবিষ্কার প্রথম প্রত্যক্ষ ও পরীক্ষামূলক প্রমাণ করেছে যে পুরুষের প্রজনন ক্ষমতার ক্ষতি করতে পারে কোভিড-১৯।”

২০১৯ সালের শেষ থেকে মধ্য চিনে এই রোগের উদ্ভব হয়৷ এর  পর থেকে বিশ্ব ১০০ মিলিয়নেরও বেশি মানুষ এই ভাইরাস নিয়ে জেরবার৷ শ্বাস প্রশ্বাসের মাধ্যমে সংক্রামিত হয়ে  রোগটি ফুসফুস, কিডনি, অন্ত্র এবং হৃদয়কে আক্রমণ করে। এটি শুক্রাণু কোষের বিকাশকে ক্ষতিগ্রস্ত করে  প্রজনন হরমোনগুলির ক্ষরনে সমস্যা সৃষ্টি করছে৷ তবে পুরুষ এর  পুনরুৎপাদন করার ক্ষমতার উপর ভাইরাসের প্রভাব কতটা তা এখনও জানা যায় নি৷ এই গবেষণাটি ১০ দিনের ব্যবধানে ৬০ দিন ধরে চালানো হয়েছে। ৮৪ জন কোভিড আক্রান্ত ও ১০৫ জন সুস্থ পুরুষ এর ওপর গবেষণাটি করেন বিজ্ঞানীরা।

করোনা আক্রান্ত রোগীদের  মধ্যে শুক্রাণু কোষগুলি জ্বলন এবং অক্সিডেটিভ স্ট্রেস বৃদ্ধি পেয়েছিল। এটি রাসায়নিক ভারসাম্যহীনতা তৈরি করে যা দেহের ডিএনএ এবং প্রোটিনের ক্ষতি করতে পারে। গবেষণায় প্রকাশ  এই সমস্যা সময়ের সাথে সাথে কমে যায়। তবে করোনা আক্রান্তদের মধ্যে এগুলি অস্বাভাবিকভাবে বেশি থাকে। রোগ যত মারাত্মক হবে, তত বড় পরিবর্তন আসবে।

TRP বাড়ানোর জন্য চরম অশ্লীলতার সীমা পার করছে সলমন খানের শো বিগ বস ১৪-র প্রতিযোগীরা

বিজ্ঞানীরা জানিয়েছেন, করোনা সংক্রমণে পুরুষের প্রজনন ঝুঁকিপূর্ণ হচ্ছে৷  তবে এই বিষয়ে এখনও গবেষণা প্রয়োজন এও জানানো হয়েছে৷  ব্রিটেনের কেএআরই ফার্টিলিটি গ্রুপের ভ্রূণতত্ত্ব পরিচালক অ্যালিসন ক্যাম্পবেল উল্লেখ করেছিলেন, “পুরুষদের অযৌক্তিকভাবে আশঙ্কা করা উচিত নয়।” তিনি লন্ডন ভিত্তিক বিজ্ঞান মিডিয়া সেন্টারে বলেছেন, “শুক্রাণু বা পুরুষ প্রজনন সম্ভাবনার পক্ষে কোভিড -১৯ এর ফলে দীর্ঘস্থায়ী ক্ষতির কোনও সঠিক প্রমাণ বর্তমানে পাওয়া যায়নি।”