আগামী 15 জুন থেকে কী সত্যিই বন্ধ হতে চলেছে ট্রেন- বিমান পরিষেবা? খবরের সত্যতা জানতে..

গোটা সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে সম্প্রতি কয়েকদিন ধরে একটি মেসেজ ঘোরাফেরা করছে যেখানে দেখা যাচ্ছে আগামী 15ই জুন থেকে আবার রেল ও বিমান পরিষেবা বন্ধ করতে চলেছে কেন্দ্রীয় সরকার। অনেকেই আবার এই খবরের সত্যতা যাচাই না করে খবরটিকে সোশ্যাল মিডিয়াতে ছড়িয়ে দিচ্ছেন যার ফলে একপ্রকার আতঙ্কের সৃষ্টি হয়েছে সকলের মনে। তবে এবার এই খবরের সত্যতা যাচাই করে পিআইবি (PIB) ফ্যাক্ট চেকের তরফ থেকে যে তথ্যটি উঠে গেল সেখানে জানা যাচ্ছে এই তথ্যটি সম্পুর্ণ ভুল ও ভুয়ো।

কিছু মানুষজন তথ্যটিকে বিকৃতি করে ছড়িয়ে দিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়াতে বলে দাবি করছেন পিআইবি-র ফ্যাক্ট চেক। তবে শুধু তাই নয় এই ছবিটিতে দেখা যাচ্ছে একটি টিভি চ্যানেলের নাম যেখানে নাকি দেখানো হচ্ছে এই খবরটি। এমন ভাবেই প্রকাশিত করা হয়েছে এই খবরটিকে গোটা সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে। যেখানে প্রকাশিত এই খবরকে দেখানো হচ্ছে আগামী 15 জুন থেকে আবারো বন্ধ হতে চলেছে দেশজুড়ে রেল এবং বিমান পরিষেবা।তবে যেমনটা আমরা জানি খবরের সত্যতা যাচাই না করে অনেক মানুষ এটিকে সোশ্যাল মিডিয়াতে রীতিমতো ছড়িয়ে দিয়েছেন যার ফলে এটি ভাইরাল হয়ে গিয়েছে।

 

তবে এবার এই ছবিটি কে নিয়ে একটি বিজ্ঞপ্তি পেশ করেছে পিআইবি। যেখানে এই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে পুরো খবরটি ভুয়া এই ধরনের কোনো সিদ্ধান্ত সরকারের তরফ থেকে নেওয়া হয়নি। এছাড়া ট্রেন এবং বিমান পরিষেবা বন্ধ করার খবরটি ও পুরোপুরি ভাবে মিথ্যে। তবে এই মুহূর্তে জরুরী পরিষেবা এবং বন্দে ভারত মিশন ছাড়া আন্তর্জাতিক বিমান পরিষেবা আপাতত বন্ধ রয়েছে কিন্তু এক্ষেত্রে রাজ্য বিমান পরিষেবা গত 25 মে থেকে শুরু করা হয়ে গেছে।

তাছাড়া সরকারি বিমান সংস্থা এয়ার ইন্ডিয়া সহ সমস্ত রকম বেসরকারি বিমান সংস্থাগুলো তাদের পরিষেবা শুরু করে দিয়েছে ইতিমধ্যে।যেমনটা আমরা জানি গত 25 শে মার্চের পর থেকে ট্রেন পরিষেবা বন্ধ রাখা হয়েছিল দেশজুড়ে লকডাউনের জেরে। পরবর্তীকালে পহেলা মে থেকে শুরু করা হয় শ্রমিকদের জন্য স্পেশাল ট্রেনের। আর তারপর স্পেশাল ট্রেন চালু করা হয়েছে দেশের সাধারণ মানুষের জন্য গত 13 ই মে থেকে।