বিরাট কোহলি ভাঙতে চলেছে আরেকটি বিশ্বরেকর্ড এর আগে ভেঙ্গে ছিলেন শ্রীলংকার একটি প্লেয়ার।

ভারতীয় ক্রিকেট দলের গৌরব বিরাট কোহলি। তিনি সত্যিই একজন সফল ক্রিকেটার ব্যাটসম্যান।তিনি এক সাক্ষাৎকারে বলেছিলেন যে,সফল মানুষের জীবনটা বড় একঘেয়েমি হয়ে যায় কথাটি সত্যি এবং বিরাট কোহলি নিজেও এটির সম্মুখীন হন প্রতিদিন। ঘুম থেকে তাড়াতাড়ি ওঠার পরে একঘেয়েমি কাঁচা বা সিদ্ধ ব্রেকফাস্ট, এরপর জিম, ট্রেনিং, লাঞ্চ, আবার ট্রেনিং এবং এর পরে ঘুম অর্থাৎ তার জীবনটা একটি সীমার মধ্যে বন্দী। খুব ক্ষীন সময়ের জন্য তিনি এসব থেকে মুক্তি নিয়ে আনন্দ উপভোগ করতে পারেন। যেহেতু তিনি একজন প্রতিষ্টিত ব্যাটসম্যান তাই তার ছুটি নেওয়া তার ফ্যানরা বেশিদিন সহ্য করবে না তাই ফ্যানদের মন রাখতে এবং নিজের দলকে মজবুত করতে তাকে খেলতেই হবে।

শনিবারের ওয়ানডে ম্যাচ ধরে টানা তিনটি সেঞ্চুরি করলেন বিরাট কোহলি। প্রথম ভারতীয় ব্যাটসম্যান যে ওয়ানডে ম্যাচে পরপর তিনটি সেঞ্চুরি করেছে। টানা চারটি সেঞ্চুরি বিশ্বরেকর্ড শুধুমাত্র আছে শ্রীলংকার প্লেয়ার কুমার সাঙ্গাকারার।তবে শনিবারের ম্যাচে সঙ্গ দিতে পারলেন না বিরাট কোহলির সহ খেলোয়াড়রা। এই ম্যাচের শুধু বিরাট কোহলি ভালো খেলেছেন এমনটা নয়, দুরন্ত বলার জাসপ্রিত বুমরা বিশ্রাম থেকে এসেই 10 ওভারে মাত্র 35 রান দিয়ে চারটি উইকেট নিয়েছেন। তবে নিরাশ করেছে অন্য খেলোয়াড়রা।
পুনেতে 83 রানে লিড নিয়ে জিতে ওয়েস্ট ইন্ডিজ স্কোর বোর্ড 1-1 করেছে। জেবিন ম্যাচে ম্যান অফ দ্যা ম্যাচ ছিল অ্যাশলী নার্স। তবে এই ম্যাচে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করেছেন তিন নাম্বারে নামা ব্যাটসম্যান শেই হোপ। ভারতের সামনে ওয়েস্ট ইন্ডিজ লক্ষ্য দিয়েছিল 284 রান। কিন্তু ভারতের পক্ষে এই রান করা আর সম্ভব হলো না।

ভারতীয় ওপেন নাড়া ব্যর্থ হয়েছিলেন কিন্তু যত ভুল বিরাট কোহলি ছিলেন তরুণ মনে হচ্ছিল যেন সমস্যা হবে না।কিন্তু তার সহ খেলোয়াড়রা তার সঙ্গ দিচ্ছিলেন না।ওপেনারদের ব্যর্থতার ফলে মিডল অর্ডার ব্যাটসম্যান দের উপর তাকিয়েছিল ফ্যানরা কিন্তু এখানে ভারত ব্যর্থতার মুখ দেখেছে। সুযোগের ঠিক ব্যবহার করে নিজের জায়গা করে নিতে পারলেন না আম্বাতি রাইডু বা ঋষাভ পন্থ। এছাড়াও ব্যাট হাতে নিরাশ করছেন মহেন্দ্র সিং ধোনি।মহেন্দ্র সিং ধোনি এমন একজন ক্রিকেটার ছিলেন যার ব্যাট কথা বলত কিন্তু এখন আর বলছে না। নির্দ্বিধায় ধোনির ফিটনেস এখন আকাশছোঁয়া উইকেটের পেছনে দুরন্ত মহেন্দ্র সিং ধোনি কিন্তু ব্যাট হাতে নয়। একটা সময়ই ধোনির হেলিকপ্টার শট’ বলার দের দুঃস্বপ্নে আসতো কিন্তু এখন ধোনির সেই ফ্রম আর নেই। সব মিলিয়ে ভারতীয় ক্রিকেট টিমকে মিডল অর্ডার ব্যাটিংয়ে কঠিন সমস্যায় ভুগতে হচ্ছে।