মোদি সরকারের আরো এক দুর্দান্ত সাফল্য, একদিন ১ কোটির কাছাকাছি টিকাকরণ দিয়ে ভারত গড়ল নতুন রেকর্ড

গোটা দেশজুড়ে এখনো দাপিয়ে বেড়াচ্ছে করোনা ভাইরাস। তবে কিছু এলাকায় সংক্রমণের তীব্রতা ধীরে ধীরে কমছে। তবে এসবের মধ্যেই করোনার তৃতীয় ঢেউকে ঘিরে নতুন করে উদ্বেগ তৈরি হয়েছে। এসবের মধ্যেই গোটা দেশজুড়ে টিকাকরণ চলছে পুরোদমে।এদিকে শুক্রবার, কোভিড টিকাকরণ অভিযানে ঐতিহাসিক সাফল্য পেল ভারত। একদিনে ৯০ লক্ষেরও বেশি মানুষকে টিকা দেওয়া হয়েছে গোটা দেশে। টুইটারে একথা ঘোষণা করলেন স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মান্ডব্য।

এই টিকাকরণ নিয়ে প্রধানমন্ত্রী লিখেছেন,’ রেকর্ড টিকাকরণ আজ। এক কোটি ছুঁলো।স্মরণীয় দিন। যারা টিকা নিচ্ছেন তাদেরকেও শুভেচ্ছা। যাঁরা এই টিকাকরণ কে সফলতার পথে নিয়ে যাচ্ছেন তাদেরকেও প্রশংসা করছি’। কো-উইন পোর্টাল এর সর্বশেষ তথ্য বলছে, সারাদেশে এদিন ৯৩ লক্ষ ৯ হাজার ৫১৬ টিকার ডোজ দেওয়া হয়েছে।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য ও পরিবারকল্যাণমন্ত্রক জানিয়েছে, গোটা দেশে এখনো পর্যন্ত ৬২ কোটি ডোস টিকা দেওয়া হয়েছে। ডিসেম্বরের মধ্যে ৮০ কোটি মানুষকে টিকা দেওয়ার লক্ষ্যমাত্রা নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার। তবে এই লক্ষ্যমাত্রা কতটা পূরণ হবে তা নিয়ে সংশয় দেখা দিয়েছে। কেন্দ্রীয় সরকারের কোভিড টিকা উপদেষ্টা সংক্রান্ত প্যানেলের প্রধান এনকে অররা জানিয়েছিলেন,’ আগের চেয়ে বেড়েছে টিকার উৎপাদন। সেপ্টেম্বরে ২০ কোটি, অক্টোবরে ২৫ কোটি, ডিসেম্বরে ৩৫ কোটি ডোস চলে আসবে। ডিসেম্বরের মধ্যে ৮০কোটি মানুষকে টিকার দুটি ডোস দেওয়া সম্ভব’।

পরিসংখ্যান বলছে, এর আগে দেশ একই দিনে এত বিপুল সংখ্যক মানুষকে টিকা দিতে পারেনি। তবে এদিনের এই সংখ্যাকে বিশেষ গুরুত্ব দিয়ে দেখছেন স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরা। ভারত যে কোভিড যুদ্ধ জয়ের দিকে ক্রমশ এগোচ্ছে তা নিয়ে আশাবাদী অনেকেই। প্রধানমন্ত্রী এদিন নাগরিকদের পাশাপাশি টিকাকরণের সঙ্গে যুক্ত সকলকে প্রশংসা করেছেন।

কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্যমন্ত্রী মনসুখ মন্ডবিয়া একটি টুইটে জানান, ‘সবকা সাথ, সবকা বিকাশ, সবকা প্রার্থনা। এই একই প্রচেষ্টা যার মাধ্যমে দেশটি একদিনে এক কোটিরও বেশি ভ্যাকসিন দেওয়ার লক্ষ্য অতিক্রম করেছে। স্বাস্থ্যকর্মীদের অক্লান্ত পরিশ্রম এবং প্রত্যেককে টিকা দেওয়ার জন্য প্রধানমন্ত্রীর সংকল্প বিনামূল্যে টিকাকরণের লক্ষ্য কার্যকর হচ্ছে ‘।