শিলং থেকে ফিরে কুনাল ঘোষের বিস্ফোরক মন্তব্য, কলকাতা কমিশনার রাজীব কুমারের বিরুদ্ধে। বললেন রাতেই ফোন করে…

সারদা কাণ্ডের তদন্ত সঠিক পথে এগোতে নাও পারে এমনটাই আশঙ্কা করছে সারদা কাণ্ডের অন্যতম অভিযুক্ত কুনাল ঘোষ। আর এর জন্য তিনি কলকাতা পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমার কে দায়ী করছেন। শিলং থেকে ফিরে এমনই বিস্ফোরক অভিযোগ করলেন কুনাল ঘোষ। গত দুদিন ধরে শিলং সিবিআই দপ্তরে কুণাল ঘোষের সঙ্গে রাজীব কুমার কে বসিয়ে জেরা করে সিবিআই-এর অফিসাররা। চতুর্থ দিন অর্থাৎ মঙ্গলবারেও রাজীব কুমার কে জেরা করে সিবিআই। সিবিআই কুণাল ঘোষকে জেরা করার পর তিনি কলকাতায় চলে আসে। কলকাতা বিমানবন্দরে নেমেই সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয় কুনাল ঘোষ।আর সেখানেই তিনি বিস্ফোরক মন্তব্য করেন।

 

এদিন সাংবাদিকদের তিনি জানান, জেরা করার সময় যেসব পুলিশ অফিসারদের নাম উঠে আসছে জেরার পর সেই সমস্ত পুলিশ অফিসারদের ফোন করেছে রাজীব কুমার। আর তাই তিনি বলছেন তদন্তে বাধার সৃষ্টি হচ্ছে।কুনাল ঘোষ জানান, 10 এই ফেব্রুয়ারি ও 11 ই ফেব্রুয়ারি জেরা করার সময় পুলিশ অফিসারদের নাম উঠে আসে। তাদের প্রসঙ্গে রাজীব কুমার কে জিজ্ঞাসাবাদ করে সিবিআই। আজ জেরা থেকে বেরিয়ে ঐ সমস্ত পুলিশ অফিসারদের সঙ্গে কথা বলেন রাজীব কুমার। কুনাল ঘোষ এর দাবি, যারা এই তদন্তের ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ সাক্ষী হতে পারেন তাদের কে ফোন করে তদন্তের দিশা ঘোরানোর চেষ্টা করছে রাজীব কুমার। কুনাল ঘোষ আরো জানান যে, রাজীব কুমারের ফোন করার কথা তার অভিযোগ নয়। রাজীব কুমার জেরার সময় নিজেই স্বীকার করেছেন এটি। কথার মাঝে তিনি নিজের মুখ ফসকে বলে ফেলেন, রাত্রে তাদের সাথে কথা হয়েছে। আর এখানে কুণাল ঘোষের আশঙ্কা রয়েছে যে তদন্তের গতি অন্যদিকে চলে যেতে পারে।

এই বিষয়টি নিয়ে ইতিমধ্যেই লিখিত ভাবে সিবিআই কে জানিয়েছেন তিনি। তিনি এই আশঙ্কার কথা সরাসরি জানিয়েছেন গোয়েন্দাদের। অপরদিকে আবার সূত্রের খবর পাওয়া যায় যে, কুণাল ঘোষের সঙ্গে জেরা করার সময় রাজীব কুমার এর বক্তব্যে অনেক অসঙ্গতি লক্ষ্য করা গেছে। কুনাল ঘোষের সঙ্গে রাজিব কুমারের কিছু কিছু অমিল রয়েছে বলে খবর পাওয়া যায়। তাই গোয়েন্দারা আবার জেরা করছে।সিবিআই রাজীব কুমার কে কি কি প্রশ্ন করবে সেটিও তৈরি হয়ে গেছে। চতুর্থ দিন অর্থাৎ মঙ্গলবার সে সমস্ত প্রশ্নের মুখোমুখি ও হয়েছেন কলকাতার পুলিশ কমিশনার রাজীব কুমার।

Related Articles

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Open

Close