আমেরিকান সেনার বড় ধামাকা। ড্রোন হামলায় পাকিস্তানের ২৭০০ কট্টরপন্থী শেষ, স্বীকার করল পাকিস্তান নিজে।

অনেকবার সতর্ক করার পরও পাকিস্থান কখনোই শুনেনি । যদিও পাকিস্তানের তহবিল ফান্ডিং বন্ধ করে দেওয়ার পরেও আমেরিকা নিজে পাকিস্তান ও আফগানিস্থান থেকে ISIS এর আতঙ্কবাদীদের ফাঁকা করা শুরু করেছে ।আমেরিকা অনেকবার আতঙ্কবাদী সাফ করার জন্য পাকিস্থানের উপর ড্রোন হামলা করেছে, যদিও পাকিস্থান তা কোনোদিন এটা স্বীকার করে নি । আপনাদের মনে করিয়ে দিই ভারত যখন পাকিস্থানের উপর স্ট্রাইক করেছিল তখনও পাকিস্থান স্বীকার করেনি । কিন্তু বর্তমানে পাকিস্তানের মিডিয়া ‘ডন’ এই বিষয়ে পর্দাফাঁস করে দিয়েছে ।

ডনের প্রকাশিত খবর অনুযায়ী, পাকিস্থানের উপর লাগাতার অনেকবার ড্রোন হামলা হয়েছে , যার জন্যে ২৭০০ বেশি সন্ত্রাসবাদী মারা পড়েছে । আমেরিকা এখনো পর্যন্ত পাকিস্থানের উপর মোট ৪০৯ টি ড্রোন হামলায় করেছে , তার ফল স্বরূপ প্রায় ২,৭১৪জন সন্ত্রাসবাদী মারা পড়েছে ও ৭৪০ জনের বেশি আহত হয়েছে । শুক্রবারের ‘ প্রকাশিত খবরের থেকে জানা গেছে ,হানগু,বানু,মোহাম্মদ, উত্তর বাজিরিস্থান,দক্ষিণ বাজিরিস্থান এই সব অঞ্চলে ড্রোন দ্বারা হামলা করা হয়েছে ।যদিও বেশি হামলা করা হয়েছে মধ্য p.p.p. পার্টির শাসনকালে। এই সময় মোট ৩৩৬ টি হামলা করা হয়েছে ,যেখানে প্রায় ২২৮২ জন আতঙ্কবাদি মারা গেছে এবং আহতের সংখ্যা ৬৫৮ এরও বেশি।

আপনাদের জানিয়ে দিই, ২০১০ সালেও আতংবাদি উপর ১১৭ টি হামলা করা হয়েছিল যার জন্য ৭৭৫ জন সন্ত্রাসবাদী মারা যায় এবং আহতের সংখ্যা ছিল ১৯৩ এরও বেশি ।
যেখানে আমেরিকার এই হামলায় মারা গিয়েছিল তালিবান এর প্রধান “মোল্লা আখতার মনসুর” সেখানে ২০১৮ সালের (drone) হামলায় মারা গিয়েছিল তাহারিক – ই পাকিস্থানের শীর্ষ নেতা, যদিও এর মৃত্যুর খবরটি পরে জানা যায়। পাকিস্তানের মিডিয়ার দাবি ভারতের চাপে লাগাতার এই সব কিছু করছে আমেরিকা।

Related Articles

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.

Close