কোহলীর অধিনায়কত্ব নিয়ে বড় প্রশ্ন তুলে জয় শাহকে ফোন অজিঙ্কা রাহানে ও পূজারার, তারপর

অনেকদিন ধরেই বিরাট কোহলির অধিনায়কত্ব নিয়ে ভারতীয় দলের মধ্যে সমস্যা তৈরি হচ্ছিল। যদিও জনসমক্ষে এখনো পর্যন্ত কোনো ঘটনা না ঘটলেও জল্পনা তুঙ্গে । ঘটনার সূত্রপাত হয় নিউজিল্যান্ডের বিরুদ্ধে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়ন শিপ ফাইনালের হারের পর থেকেই। কোহলির অধিনায়কত্বে নিয়ে সরাসরি প্রশ্ন তুলেছেন অজিঙ্ক রাহানে- এবং চেতেশ্বর পূজারা। নিউ ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস’-এর একটি প্রতিবেদনে এমন তথ্য উঠে এসেছে।

ঘটনার সূত্রপাত বেশ কিছুদিন আগে যখন নিউজিল্যান্ড এর বিরুদ্ধে বিশ্ব টেস্ট চ্যাম্পিয়নশিপ ভারত হেরেছিল। ১৭০ রানে ভারত হেরেছিল এই ম্যাচে । ৯৯রানে ৮ উইকেট পায় তারা। যেখানে জয়ের জন্য প্রয়োজন ছিল ১৩৯ রানের। সেই সময় সাংবাদিক বৈঠকে বিরাট কোহলি বলেন, “রান করার মানসিকতা থাকা উচিত তাহলেই রান করার জায়গা খুঁজে পাওয়া যাবে ।সব সময় আউট হয়ে যাব এই চিন্তা করলে চলবে না । তাহলে বোলার মাথায় চেপে বসবে। ”

তথ্য সূত্র মতে এই ম্যাচের হারের পরে রাহানে এবং পুজারা বিসিসিআই সচিব কে ফোন করেন। ম্যাচ হারার পরিপ্রক্ষিতে বিরাট কোহলির অধিনায়কত্বে নিয়েও প্রশ্ন তোলেন তাঁরা । বিরাট কোহলির ওপর যে অভিযোগের তীর ছোঁড়া হয়েছিল সেটি পুজারা এবং দলের সহ-অধিনায়ক রাহানের মাধ্যমে আসার ফলে বোর্ডের তরফ থেকে নড়েচড়ে বসা হয়েছিল। কারণ টিমের দুজন গুরুত্বপূর্ণ প্লেয়ারের কাছ থেকে এ ধরনের অভিযোগের ফলে বিষয়টি ভাবনা চিন্তা করতে শুরু করেন। দলের অন্যান্য ক্রিকেটারদের এই বিষয়ে মতামত দেওয়ার জন্য জিজ্ঞাসা করা হয় ।

Advertisements

আপাতত এ বিষয়ে কোনো সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়নি। সফর শেষ হলেই এই বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। কাকতালীয়ভাবে ইংল্যান্ড সফর থেকে ফিরে আসার পরই বিরাট কোহলি অফিশিয়ালি ভাবে টি-টোয়েন্টি দল থেকে নেতৃত্ব ছেড়ে দেওয়ার কথা ঘোষণা করেন । তবে ইংল্যান্ড সফর চলাকালীন তাঁর বিরুদ্ধে দলের মধ্যে বিরক্তি চরম পর্যায়ে পৌঁছায়। নিজের অধিনায়কত্ব ছাড়ার পিছনে যুক্তি দিতে কোহলি বলেন মূলত ব্যাটিংয়ে নজর দেবার জন্যই তিনি অধিনায়কত্ব ছেড়েছেন ।

Advertisements

ভবিষ্যতে আইপিএলের পর রয়েল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর এর অধিনায়কত্ব পদও ছেড়ে দেবেন বলে জানান। তবে অদূর ভবিষ্যতে একদিনের ক্রিকেট থেকেও কোহলি যে অবসর নিতে পারেন একথা ক্রিকেট বিশেষজ্ঞদের মুখে মুখে ঘুরছে।