৮৭ বছর পর নির্মালি স্টেশনে আবার আসলো ট্রেন, খুশিতে পুজো অর্চনা গ্রামবাসীর

১৯৩৪ সালে বিধ্বংসী ভূমিকম্পের ফলে সরাইগড়-নির্মালি রেলপথ সম্পূর্ণ বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। তাই ওই স্থানের রেল যোগাযোগ ব্যবস্থা সম্পূর্ণ বন্ধ হয়ে গিয়েছিল। ওই নির্মালি নগরের বসবাসকারী মানুষেরা অনেকদিন ধরে অপেক্ষায় ছিল কবে নির্মালি স্টেশনে আবার আসবে ট্রেন। এই নগরবাসী স্বপ্ন সম্প্রতি পূরণ হয়েছে। ওই স্টেশনে আবার এসেছে ট্রেন। ট্রেনের ইঞ্জিনের হুইসেল দিতেই স্টেশনে ট্রেনকে দেখতে চলে আসে বহু মানুষজন। নরেন্দ্র মোদির নামে তাঁরা জয়ধ্বনি তোলে। সাথে অনেক পূজা-অর্চনা করে।

 

এক ভূমিকম্পের ক্ষয়ক্ষতির জন্য একবার সরাইগড়-নির্মালি রেলপথ সম্পূর্ণ বন্ধ করে দেওয়া হয়। তারপর কেন্দ্রে বিজেপি সরকার আসার পর ২০০৩ সালের ৬ ই জুন তখনকার প্রধানমন্ত্রী অটল বিহারী বাজপেয়ী নির্মালি কলেজ থেকে কোসি নদীর উপর সেতু তৈরির জন্য শিলান্যাস করেছিলেন। ২০২০ সালের ১৮ ই সেপ্টেম্বর এই সেতু নির্মাণ হওয়ার পরে আসনপুর কপাহা স্টেশন থেকে আবারও রেল পরিষেবা চালু করেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র দামোদর মোদি।

বর্তমানে সরাইগড় ও নির্মালির মধ্যে রেলপথ আবার যুক্ত হয়েছে। নির্মালি রেলস্টেশন এখন সম্পূর্ণরূপে তৈরি হয়ে গেলেও ট্রেন চলাচল এখনও শুরু হয়নি। এখন ট্রেনের গতি পরীক্ষা চলছে। গতি পরীক্ষার জন্যই যখন নির্মালি স্টেশনে ট্রেন আসে। ট্রেনটিকে দেখবার জন্য বহু গ্রামবাসী সেখানেই ছুটে আসে। এর সাথে গ্রামবাসীরা স্লোগান দেন – ‘মোদী আছে বলেই সব সম্ভব’।

টেনটিকে দেখার জন্য যেমন গ্রামবাসীরা এসেছিলেন এছাড়াও সেখানে উপস্থিত ছিলেন রেলের কর্মকর্তারা। দীর্ঘ ৮৭ বছর অপেক্ষার পর ট্রেন পৌঁছালো নির্মালি স্টেশনে। ট্রেনের স্পিড ট্রায়াল শেষ হলেই শীঘ্রই এখানে ট্রেন চালু করা হবে বলে জানা গিয়েছে রেল কর্তৃপক্ষ মারফত।