11 হাজার ঘরছাড়া, 40 হাজার প্রভাবিত” বাংলার হিংসা নিয়ে SC/ST অধ্যাপকদের চিঠি রাষ্ট্রপতিকে

পশ্চিমবঙ্গে ভোট পরবর্তী সময়ে হিংসার জন্য তপশিলি জাতি/উপজাতির ১১৪ জন অধ্যাপক রাষ্ট্রপতি রামনাথ কোভিন্দকে (Ram Nath Kovind) চিঠি লিখেছেন। সেন্টার ফর সোশ্যাল ডেভলেপমেন্ট (CSD) এর তরফ থেকে লেখা এই চিঠিতে দিল্লী ইউনিভার্সিটির প্রাক্তন প্রফেসরদের স্বাক্ষর আছে। ওই চিঠিটি টাইমস অফ ইন্ডিয়ার সাংবাদিক রোহন দুয়া তাঁর টুইটার অ্যাকাউন্টে শেয়ার করেছেন এবার ওই চিঠির বিষয়বস্তু সম্পর্কে আমরা বিশদে জানবো।

 

ওই চিঠিতে লিখেছেন যে ভোটের পর রাজ্যে হিংসার সঞ্চার হয়েছে। এই হিংসার জেরে ১১ হাজার মানুষ ঘরছাড়া হয়েছেন। ৪০ হাজার মানুষ প্রভাবিত হয়েছে। এদের মধ্যে বেশীরভাগই তফসিলি জাতিভুক্ত। এই হিংসার জন্য ১ হাজার ৬২৭টি মামলা দায়ের হয়েছে ।

এর পাশাপাশি জ্বালিয়ে দেয়া হয়েছে ৫ হাজার বেশী মানুষের বাড়িঘর। প্রায় ২ হাজারের বেশী মানুষ প্রাণের ভয়ে অসম, ঝাড়খণ্ড এবং ওড়িশায় গিয়ে আশ্রয় নিয়েছেন। হিংসার কারণে প্রাণ হারিয়েছেন ২৬ জন মানুষ। শাসকদল নাকি এসসি এসটি সম্প্রদায়ভুক্ত নারীদের উপর অত্যাচার করছে, তাদের জমি হস্তান্তর করেছে।

এই হিংসার কারণ এই ক্ষতিগ্রস্ত মানুষদের বাড়িঘরের পুননির্মাণ করে পুনর্বাস দেওয়া হোক। এর পাশাপাশি নিগৃহীতদের মেডিক্যাল সুবিধা এবং প্রাথমিক সুবিধা দেওয়া হোক।

এর আগেও পশ্চিমবঙ্গে হিংসার বিরুদ্ধে পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য রাষ্ট্রপতির কাছে আবেদন জানানো হয়েছিল। ১৪৬ জন সদস্য বিশিষ্ট দল থেকে ওই চিঠিটি লেখা হয়। ওই চিঠিতে স্বাক্ষর ছিল প্রাক্তন আমলা, প্রাক্তন বিচারপতি, প্রাক্তন কূটনৈতিকবীদ সহ সমাজের বিশিষ্ট ব্যক্তিদের। ২ হাজার ৯৩ জন মহিলা আইনজীবী সুপ্রিম কোর্টের প্রধান বিচারপতির কাছে আবেদন করেন পশ্চিমবঙ্গের হিংসা বন্ধ করার জন্য।