দেশনতুন খবরবিশেষলাইফ স্টাইল
Trending

বাঙালি যুবকের হাত ধরে করোনা প্রতিরোধে বিশ্বকে পথ দেখাচ্ছে কানাডার গবেষকরা..

ধীরে ধীরে বিশ্বের সমস্ত জায়গায় ছড়িয়ে পড়ছে এই করোনা ভাইরাস। হাজার হাজার মানুষ এই ভাইরাসে বর্তমানে আক্রান্ত এবং বহু মানুষ মারাও গেছেন ইতিমধ্যে। WHO এর তরফ থেকে এই করোনা ভাইরাসকে ‘বিশ্বব্যাপী মহামারি’ ঘোষণা করা হয়েছে। এই ভাইরাসকে ঢুকতে বিভিন্ন দেশের বিভিন্ন বৈজ্ঞানিকরা রিসার্চ করে যাচ্ছেন অনেকদিন ধরে। কানাডার এক গবেষক দল একধাপ এগিয়ে রয়েছেন এই রিসার্চের কাজে।

আর এই দলে রয়েছেন একজন বাঙালিও। এনার নাম হল অরিঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়। কানাডায় গবেষক দল আদেও কী করোনা রুখতে তৎপর? এই প্রসঙ্গে বাঙালি গবেষক অরিঞ্জন বাবু বলেছেন, তারা কিছুটা হলেও এই ভাইরাসকে কীভাবে জব্দ করতে হয় তার উত্তর খুঁজে পেয়েছেন। এর ফলে সারা বিশ্বজুড়েই মরণ ভাইরাসকে আটকানো সম্ভব হতে পারে। খবর সূত্রে জানা গিয়েছে, কানাডার তিনটি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষকরা এই করোনাভাইরাস রোখার বিষয়ে খুবই আশাবাদী।

তার গবেষণা গোটা বিশ্বকে এই করোনা ভাইরাস থেকে বাঁচাতে পারে বলে আশাবাদী তিনি। ইতিমধ্যেই অরিঞ্জন বাবু তার গবেষক দলের সঙ্গে সোশ্যাল মিডিয়ায় একটি ছবি পোস্ট করেছেন। এবং ছবি পোস্ট করার সঙ্গে জানিয়েছেন তাদের গবেষণায় সাফল্যের কথা। অরিঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায় জানিয়েছেন, “করোনা যেভাবে গোটা বিশ্বে যেভাবে থাবা বসাচ্ছে তা খুবই দুঃখজনক। তবে এই ভাইরাসকে রুখতে আমি যে ভূমিকা নিতে পারছি তা গর্বের বিষয়।”

গবেষক অরিঞ্জন বাবুর দাবি, তাঁদের দল SARS COVID-2 ভাইরাসকে আলাদা করতে পেরেছেন। এবং এই মহামূল্যবান তথ্য তিনি বাকি গবেষকদের দিতে চান বলেও জানিয়েছেন। আর সবাই মিলে এই মরণ ভাইরাসের প্রতিষেধক আবিষ্কার কাজে লাগল তাতে সাফল্য আরো সহজ হয়ে যাবে বলে মনে করেন তিনি। ছোটবেলা থেকেই তার ইচ্ছে ছিল, মানুষের মহা সংকটের সময় তিনি এমন কিছু কাজ করবেন যাতে সবার উপকার হয়।

আর তিনি এই ভাইরাসের প্রতিষেধক আবিষ্কার করে ফেললে তার ছোটবেলার স্বপ্ন পূরণ হয়ে যাবে এবং এই স্বপ্ন পূরণ করার একধাপ এগিয়ে গেছেন তিনি।টরোন্টোর ম্যাকমাস্টার বিশ্ববিদ্যালয়ের সংক্রমিত রোগ বিভাগের গবেষক এই অরিন্দম বন্দ্যোপাধ্যায়। এই বিভাগে যে কোনো রকমের মহামারী রোগ বা সংক্রমিত রোগ বা বাদুড় থেকে সংক্রমিত রোগ সম্পর্কে গবেষণা করা হয়। এই গবেষক দল COVID-19 এর চরিত্র-চিত্রন গঠন করতে সক্ষম হয়েছেন। ফলে এই করোনাভাইরাস কে আটকাতে খুব তাড়াতাড়ি সফল হবেন এই গবেষক দল বলে মনে করা হচ্ছে।

দুজন রোগীর লালা রস এবং রক্তের নমুনা সংগ্রহ করে এই করোনাভাইরাস কে আটকানোর ঔষধ খুঁজে পেয়েছেন কানাডার এই গবেষক দল।এখন দেখার বিষয় হলো আদৌ কি এই গবেষক দল বা কোনো গবেষক এই মরণ ভাইরাসের প্রতিষেধক আবিষ্কার করতে পারেন কিনা। কারণ সারা বিশ্ব এখন এই করোনাভাইরাস কে নিয়ে চিন্তিত।

Related Articles

Back to top button