টেক নিউসনতুন খবরবিশেষ

Tik-Tok এর পর কী সত্যিই বন্ধ হতে চলেছে PUBG? একাধিক জল্পনা গোটা সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে..

সম্প্রতি লাদাখ সীমান্তে ভারত এবং চীনের মধ্যে সংঘর্ষ হওয়ার পর থেকে সারা দেশজুড়ে চীনা পণ্য থেকে শুরু করে সমস্ত চীনের জিনিস বয়কট করার দাবি উঠে। এই মর্মে কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে 59 টি চিনা অ্যাপ বন্ধ করার নির্দেশ দিয়েছিল কেন্দ্রীয় সরকার। এই 59 টি চীনা অ্যাপের মধ্যে প্রথম তালিকায় ছিল টিকটক। পরে সাংবাদিক সম্মেলন করে মোট ফিফটি নাইন চিনা অ্যাপ এর তালিকা প্রকাশ করা হয় কেন্দ্রীয় তথ্য প্রযুক্তি মন্ত্রকের তরফ থেকে। যেদিন থেকে এই অ্যাপগুলি নিষিদ্ধ করার ঘোষণা করা হয় সেই দিন থেকেই সোশ্যাল মিডিয়ায় জল্পনা দেখা দেয় যে আদৌ কী পাবজি মোবাইল বা জুমের মতোন অ্যাপ ব্যান করা হবে ভারতে।

এই নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় নানান জল্পনা- কল্পনা দেখা দিতে শুরু করে। এই পাবজি মোবাইল অন্যতম জনপ্রিয় মোবাইল গেমের মধ্যে অন্যতম। তাই পাবজি ব্যান হওয়া কে নিয়ে রীতিমতো চিন্তায় ছিল গেম লাভাররা।তবে এই বিষয়ে সোমবার কেন্দ্রীয় তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্র দ্বারা একটি বিজ্ঞপ্তি জারি করে জানানো হয় যে, 69A আইন প্রয়োগ করে মোট 59 টি চীনা অ্যাপকে নিষিদ্ধ ঘোষণা করা হয় সারা দেশজুড়ে। এই চিহ্নত অ্যাপগুলি নিষিদ্ধ করার পেছনে কারণও জানিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার।

কেন্দ্রীয় সরকার তরফ থেকে জানানো হয়েছে, জনস্বার্থ রক্ষায় এবং মোবাইল ব্যবহারকারীদের তথ্য সুরক্ষিত রাখার জন্য এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। গালওয়ান উপত্যকায় ভারত এবং চীনের সংঘর্ষের পর লাদাখ সীমান্ত এখনো পর্যন্ত উত্তপ্ত রয়েছে। তাই ভারতের তথ্যপ্রযুক্তি বিশেষজ্ঞরা আশঙ্কা করছিলেন যে চীনের তরফ থেকে সাইবার হামলা হতে পারে। ভারতে চীন যদি সাইবার হামলা করে দেয় তাহলে বিপদে পড়তে পারে ওই চীনা অ্যাপগুলি ব্যবহারকারী মোবাইল ইউজাররা। তাই তাদের সুরক্ষার কথা মাথায় রেখেই এই সিদ্ধান্ত নিয়েছে কেন্দ্রীয় সরকার।

তবে আপনাদের জানিয়ে রাখি কেন্দ্রীয় সরকারের তরফ থেকে যে 59 টি চীনি অ্যাপের তালিকা প্রকাশ করা হয়েছে তার মধ্যে পাবজি মোবাইল এর নাম নেই। পাবজি মোবাইল নিষিদ্ধ করা নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় বিভ্রান্তি ছড়ানো সরকারের তরফ থেকে এরকম কোনো সিদ্ধান্ত এখনো পর্যন্ত নেওয়া হয়নি। এ পাবজি মোবাইল অ্যাপ টির মালিকানা চীনা কোন সংস্থা নয়। এটি দক্ষিণ কোরিয়ার সংস্থা। সুতরাং পাবজি মোবাইল নিষিদ্ধ নিয়ে যে খবর সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়াচ্ছে তা সম্পূর্ণ মিথ্যে বলে জানা যাচ্ছে।

 

Related Articles

Back to top button